শিরোনাম
তাইওয়ানে কয়েক ঘণ্টার ব্যবধানে অন্তত ৮০ বার ভূমিকম্প না ফেরার দেশে জনপ্রিয় অভিনেতা অলিউল হক রুমি তীব্র তাপপ্রবাহের মধ্যে ঝিনাইদহের শতশত নলকূপে উঠছে না পানি ! তাপমাত্রা কমাতে যেসব পরামর্শ দিলেন হিট অফিসার বুশরা মালয়েশিয়ার বুকিত চাবাংয়ে ৪৫ বাংলাদেশি আটক মালয়েশিয়ার বুকিত চাবাংয়ে ৪৫ বাংলাদেশি আটক পছন্দের মানুষকে জীবনসঙ্গী হিসেবে পেতে পাগলা মসজিদের দানবাক্সে চিঠি তীব্র তাপপ্রবাহের কারণে ছুটি বাড়ানোর দাবি অভিভাবক ঐক্য ফোরামের সাফল্যের ৮ম বর্ষে পূর্ব বড়ুয়া তরুণ সংঘ ভোরে এসে বিজয়ের হাসি হাসলেন মিশা-ডিপজল লালমনিরহাটে গ্লোবাল ক্লাইমেট স্ট্রাইক পালিত দেশটা আওয়ামী মগের মুল্লুকে পরিণত হয়েছে: মির্জা ফখরুল রাজধানীর শিশু হাসপাতালে আগুন ফের একসঙ্গে তাহসান-মিথিলা রাত ১টার মধ্যে ঢাকাসহ যেসব জেলায় ৮০ কিলোমিটার বেগে ঝড় মদিনায় বিনামূল্যে খাবার-পানীয় সরবরাহ করা সেই ইসমাইল মারা গেছেন ইসরায়েলের রকেট হামলায় যেভাবে নির্মম মৃত্যু হলো ৫,০০০ ভ্রূণের  সমালোচনার ঝড়, ইউটিউব থেকে সরিয়ে নেওয়া হলো ‘রূপান্তর’ ফরিদপুরে দুর্ঘটনা : একই পরিবারে নিহত ৫ জন দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষ, সাতসকালে সড়কে ঝরল একাধিক প্রাণ
মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ০১:১২ অপরাহ্ন

পুকুরের পানি সেচের কাজ নিয়ে মাছ চুরি

নিজস্ব প্রতিবেদন
আপলোড সময় : বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪
পুকুরের পানি সেচের কাজ নিয়ে মাছ চুরি

রাজধানীর এলেনবাড়ী গণপূর্ত অধিদপ্তরের পুকুরের মাছ চুরি করে বিক্রি করে দিয়েছেন একজন ঠিকাদার। ওই ঠিকাদারকে পুকুরের পানি সেচের কাজ দেওয়া হয়। তিনি পানি সেচে পুকুর থেকে প্রায় ৫ মন মাছ ধরে নিয়ে গেছেন। রাতের আঁধারে নিরাপত্তা কর্মীরা ঘটনা দেখে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানালেও তারা ঠিকাদারের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেননি।

ঠিকাদারের বিরুদ্ধে এই অভিযোগ উঠলেও ইতোমধ্যে তাকে সব বিল পরিশোধ করে দেওয়া হয়েছে। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানসহ ওই কাজের সঙ্গে যারা জড়িত ছিলেন তাদের বিরুদ্ধে মামলা করার নির্দেশ দিলেও গত দুই সপ্তাহে থানায় মামলা হয়নি। উপরন্তু ঠিকাদারকে বাঁচাতে লড়ছেন এলেনবাড়ী গণপূর্তের সম্পদ বিভাগের তিন প্রকৌশলী। খবর সংশ্লিষ্ট সূত্রের।

অনুসন্ধানে জানা যায়, রাজধানীর বিজয় সরণি সংলগ্ন এলেনবাড়ীতে গণপূর্তের প্রশিক্ষণ একাডেমি, ল্যাবরেটরি, কোয়ার্টার, সম্পদ বিভাগের কার্যালয় রয়েছে। ওই ক্যাম্পাসে একটি বড় পুকুর রয়েছে। ওই পুকুরে নানা প্রজাতির মাছ ছিল। সরকারি পুকুর হওয়ায় এবং মাছ ধরা নিষিদ্ধ থাকায় কেউ ওই মাছ ধরত না। ফলে মাছগুলো বিশালাকৃতির হয়। সম্প্রতি ওই পুকুরের পানিতে দুর্গন্ধ সৃষ্টি হলে কর্তৃপক্ষ পানি সেচ করতে চৌধুরী কনস্ট্রাকশন নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে নিয়োগ করে। তার দায়িত্ব পানি সেচ করবে তবে মাছগুলো যাতে মরে না যায়, সেই পরিমাণ পানি পুকুরে রাখবে। তবে তিনি শর্ত ভেঙে পুকুরের মাছ ধরে নিয়ে গেছেন। রাতের বেলায় তারা আনুমানিক ৫ মন মাছ ধরে নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা।

অভিযোগ উঠেছে, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যোগসাজশ করে এই মাছের ভাগ নিয়েছেন তিন প্রকৌশলী। তার হলেন-এলেনবাড়ী গণপূর্তের সম্পদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. নাসির উদ্দিন খান, উপবিভাগীয় প্রকৌশলী মো. তৌহিদ হাসান ওহী, উপসহকারী প্রকৌশলী খান মোহাম্মদ ইসহাক।

সূত্র জানায়, মাছ চুরির ঘটনা ঘটেছে চলতি মাসের শুরুতে। এখানকার কর্মকর্তারা এ ঘটনা নিয়ে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের মৌখিকভাবে জানালে তারা মামলা করার নির্দেশ দেন। কিন্তু দুই সপ্তাহ গড়ালেও এখনো থানায় মামলা হয়নি। উল্লিখিত তিন প্রকৌশলী মামলা করতে রাজি হচ্ছেন না।

জানতে চাইলে গণপূর্ত অধিদপ্তরের সম্পদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. নাসির উদ্দিন খান যুগান্তরকে বলেন, মাছ চুরির ঘটনার পর আমি ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বিষয়টি জানিয়েছি। তারা ঠিকাদারসহ অজ্ঞাতনামাদের বিরুদ্ধে মামলা করতে বলেছেন। এরপর তেজগাঁও থানায় কথা বলেছি। আমরা মামলা করব। ঠিকাদারকে ডেকেছি। তার সঙ্গে আলোচনার পর এই সিদ্ধান্ত নেব।

উপবিভাগীয় প্রকৌশলী তৌহিদ হাসান ওহী যুগান্তরকে বলেন, মাছ চুরি হয়েছে, এটা সত্য। তবে ঠিকাদার করেছে বলে এখনো প্রমাণিত না। এসব নিয়ে সংবাদ না করলে হয় না? কে আপনাকে এই সম্পর্কে তথ্য দিয়েছে, জানাবেন।

উপসহকারী প্রকৌশলী খান মোহাম্মদ ইসহাক যুগান্তরকে বলেন, ঠিকাদার মাছ চুরি করেছে বলে আমরা জানি না। অভিযোগ উঠেছে।

চৌধুরী কনস্ট্রাকশনের স্বত্বাধিকারী আসিফ ইকবাল যুগান্তরকে বলেন, আমি পানি সেচ করে চলে এসেছি। কে বা কারা মাছ ধরেছে জানি না।

 


এই বিভাগের আরও খবর