শিরোনাম
আন্দোলনকারীদের দেশে থাকার অধিকার নেই: জাফর ইকবাল স্ত্রীর দাবি নিয়ে স্বামীর বাড়িতে অনশন আগামীকাল সারা দেশে ‘কমপ্লিট শাটডাউন’ ঘোষণা শাবি ছাত্রলীগের কক্ষ থেকে পিস্তল ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার সরকারি চাকরিজীবীদের বেতন বাড়ছে ২৭ শতাংশ, আগস্ট থেকে কার্যকর রাবি প্রশাসনকে সময় বেধে দিলেন আন্দোলনকারীরা রংপুর পার্ক মোড়ের নাম ‌‘শহীদ আবু সাঈদ চত্বর’ দিলেন শিক্ষার্থীরা কোটাবিরোধী শিক্ষার্থীদের আন্দোলন, ৩ ঘণ্টা পর ট্রেন চলাচল শুরু নওগাঁয় কোঠা সংস্কার মিছিল ছাত্রলীগের বাঁধায় পন্ড, উভয় পক্ষের বাহাস জামালপুরে ট্রেন ও সড়ক অবরোধ কফিন ধরে আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার শপথ শিক্ষার্থীদের কোটা সংস্কার : সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী মানিকগঞ্জের গড়পাড়া ইমাম বাড়িতে পবিত্র আশুরার শোক মিছিল মানিকগঞ্জের গড়পাড়া ইমাম বাড়িতে পবিত্র আশুরার শোক মিছিল বিশ্ব গণমাধ্যমে কোটা আন্দোলনে নিহতের খবর পাসপোর্টের রোকনের ঘরে আলাদিনের চেরাগ নারায়ণগঞ্জ পাসপোর্ট অফিসে লাগামহীন ঘুষ বাণিজ্য : রোহিঙ্গা পাসপোর্টও হয় কোটা সংস্কার আন্দোলনে সমর্থন জানালেন জি এম কাদের পাসপোর্টের রোকনের ঘরে আলাদিনের চেরাগ নারায়ণগঞ্জ পাসপোর্ট অফিসে লাগামহীন ঘুষ বাণিজ্য : রোহিঙ্গা পাসপোর্টও হয়
মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ০৯:১০ পূর্বাহ্ন

উজিরপুরে পূর্বশত্রুতার জেরে বৃদ্ধকে কুপিয়ে জখম

জামাল হোসাইন, বরিশাল ব্যুরোচীফ :
আপলোড সময় : সোমবার, ২৪ জুন, ২০২৪

বরিশাল উজিরপুর উপজেলার বড়াকোঠা ইউনিয়নের গাজীরপাড় গ্রামে পূর্ব শত্রুতা এবং জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে হত্যার উদ্দেশ্যে জামাল বেপারী নামের এক বৃদ্ধকে দা দিয়ে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে প্রতিবেশী স্বপন বেপারী, জোসনা বেগম, জেসমিন বেগমসহ দুর্বৃত্তরা।

বৃহস্পতিবার (২০ জুন) বিকেলে বড়াকোঠা গাজিরপাড় গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহত জামাল অভিযোগ করে বলে, গাজিরপাড় ৪নং ওয়ার্ডের মোঃ স্বপন বেপারী (৪০), জোসনা বেগম (৩০), জেসমিন বেগম(৩২) মিলে বসতবাড়িতে ঢুকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে এবং রড দিয়ে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। আহত জামাল বেপারীকে পরিবারের লোকজন মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে উজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায় পরে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা আশংকা জনক দেখে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় । জামাল বেপারী অভিযোগ করে আজকের সংবাদ কে জানায়,দীর্ঘদিন ধরে উভয় পক্ষের মধ্য জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে আদালতে মামলাও চলে। প্রতিপক্ষরা জেল খেটে বেরিয়ে এসে আমার উপর পরিকল্পিতভাবে হামলা চালায়। তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে এ হামলা চালিয়ে মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। আমি দোষীদের আইনের মাধ্যমে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাই। এ ঘটনায় উজিরপুর মডেল থানায় মামলা দায়ের হলে দুইজন নারী আসামিকে গ্রেফতার করে পুলিশ পরদিন তারা জামিনে বেরিয়ে এসে বাদীকে হত্যার হুমকি দেয়।বাকি আসামিরা পলাতক রয়েছে। বর্তমানে ভুক্তভোগী পরিবারটি নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে আসু সুদৃষ্টি কামনা করে ভুক্তভোগী পরিবার বর্গ।


এই বিভাগের আরও খবর